নীড় / পোল্ট্রী / পোল্ট্রী রোগ পরিচিতি

পোল্ট্রী রোগ পরিচিতি

মুরগির লিভারের রোগ: লিম্ফয়েড লিউকোসিস

লিম্ফয়েড লিউকোসিস মুরগীর টিউমার সৃষ্টিকারী ভাইরাস রোগ। এ রোগের ক্ষেএে টিউমার সৃষ্টি হয় এবং রেট্রো ভাইরাস এর কিছু সারকোমা গ্রæপ এ রোগ সৃষ্টি করে তাই এ রোগের নামকরণ হয়েছে লিম্ফয়েড লিউকোসিস। এ রোগের ভাইরাস শরীরে প্রবেশ করার ৪ মাস পর রোগের লক্ষণ প্রকাশ পায়। এ জন্য ৪ মাস বয়সের নিচে …

বিস্তারিত »

প্রাণঘাতী রোগ মারেক্স: কারণ ও প্রতিকার

paralysis due to marex disease

পোল্ট্রি শিল্পে মারেক্স দমন আধুনিক কৃষি জগতে একটি উল্লেখযোগ্য ঘটনা। ১৯৬০ এর মধ্যভাগে এ রোগ বাণিজ্যিক পোল্ট্রি শিল্পকে ধ্বংস করার জন্য হুমকি হয়ে দাড়িয়েছিল। কিন্তু অভূতপূর্ব আবিস্কার , পরিজ্ঞান এবং সহয়োগিতার ফলে দ্রুত একটি কার্যকর ভ্যাকসিন আবিস্কার ও ব্যবসায়িকভাবে বাজারজাতকরণ সম্ভব হয়েছিল। যদি ও ভ্যাকসিন সহজলভ্য, তথাপি মারেক্স (marex) পোল্ট্রি …

বিস্তারিত »

The control of coccidiosis in poultry

Coccidiosis is still considered one of the main diseases affecting the performance of poultry reared under intensive production systems. The estimated cost per bird produced is €0.05, resulting in a worldwide cost of €2.3 billion. Still, with currently available diagnostic methods such as oocyst counts and lesion scoring, an interpretation …

বিস্তারিত »

ভিটামিন-ই ও সেলিনিয়াম এর ঘাটতি জনিত লক্ষণ

সাধারণত মুরগিকে polyunsaturated ফ্যাট যুক্ত খাবার যেমন সয়াবিন তেল  বেশি পরিমানে খাওয়ালে ভিটামিন-ই এর অভাব পরিলক্ষিত হয়। এসব খাবারের ভিটামিন-ই অক্সিডাইজড্‌  (rancid) হয়ে গেলে সেই ভিটামিন-ই আর bio-available থাকে না। আসুন, ভিটামিন-ই এর অভাবে যেসব লক্ষণ দেখা দিতে পারে তা ছবির মাধ্যমে দেখে নিই-   সাধারনত ১৫-৩০ দিন বয়সের বাচ্চাতে clinical …

বিস্তারিত »

মুরগীর বিপাকীয় রোগ: এভিয়ান গাউট

বর্তমানকালে জেনেটিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং এর বদৌলতে মুরগীর উৎপাদনশীলতা বৃদ্বি পেয়েছে। তবে উন্নত জাত নির্বাচনের ক্ষেত্রে প্রায়শই গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গসমূহের সুরক্ষাকে অবজ্ঞা করা হয়। যার ফলশ্রুতিতে মেটাবলিক বিশৃংখলা (Disorder) দেখা দেয়। কিডনি এমনই একটি গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ যার একাধিক মেটাবলিক ও নিঃসরণ ধর্মী কাজ সম্পাদন করে যেমন শরীরে বিভিন্ন তরল পদার্থের রাসায়নিক সংযুক্তি বজায় …

বিস্তারিত »

মুরগীর অন্ত পরজীবী নিয়ন্ত্রণ

আমাদের দেশে আবহাওয়াজনিত কারণে পোল্ট্রিতে আন্ত্রিক পরজীবীর সংক্রমণ প্রায়শ ঘটে থাকে। তিন ধরনের আন্ত্রিক পরজীবী এ জন্য মূলত দায়ী। এগুলো হচ্ছে: ১) গোলকৃমি (Nematodes/ Roundworms) ২) ফিতাকৃমি (Cestodes/Tapeworms) এবং ৩) পাতাকৃমি (Trematodes/Flukes) তবে উন্নতমানের ব্যবস্থাপনা, অল্প সময়ে পালিত মুরগী বিশেষত ব্রয়লার পালন, খাঁচায় মুরগি পালন, স্বাস্থ্য বিধি মেনে চলা ইত্যাদি …

বিস্তারিত »

মুরগীর ইনফেকশাস ল্যারিংগোট্রাকিয়াটিসঃ কারণ ও প্রতিকার

ইনফেকশাস ল্যরিংগোট্রাকিয়াটিস মুরগির ভাইরাস দ্বারা সৃষ্ট একপ্রকার শ্বসনতন্ত্র আক্রান্তকারী রোগ। এর আাক্রমণে ট্রাকিয়া ও ল্যারিংসের মিউকোসা প্রথমে ইডিমার জন্য ফুলে যায়। তারপর সেখানকার বিভিন্ন অংশ ফেটে রত্তপাত ঘটে যা পরে কাশির সাথে নাক ও মুখ দিয়ে বেরিয়ে আসতে পারে। এজন্য এ রোগের অপর নাম এভিয়ান ডিপথেরিয়া। রোগের কারণ: হারপিস (Herpes) …

বিস্তারিত »

হাসের ভাইরাসজনিত রোগঃ কারন ও প্রতিকার

গৃহপালিত পাখির মধ্যে হাঁস অন্যতম অর্থকরী সম্পদ। বাংলাদেশসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে কোটি কোটি হাঁস প্রতিপালিত হচ্ছে। একটা কথা প্রচলিত আছে যে, হাসেঁ রোগ কম হয়। এটা সত্য নয়। হাঁসে বহুপ্রকার রোগ হয় তবে মুরগির তুলনায় কম হয়। সংক্রামক রোগের মধ্যে প্রধানত ভাইরাসজনিত রোগই বেশি উলেস্নখযোগ্য। ভাইরাসজনিত রোগ যেমন ডাক ডাক …

বিস্তারিত »

মুরগীর রোগ পরিচিতিঃ পর্বঃ০৫ ঃ বার্ড ফ্লু /এভিয়ান ইনফ্লুয়েঞ্জা

বার্ড ফ্লু /এভিয়ান ইনফ্লুয়েঞ্জা মুরগির একটি মারাত্বক রোগ । সারা বিশ্বে পোল্ট্রির জগতে এই রোগ ব্যাপক ক্ষতি সাধন করে । এই রোগে মৃত্যুর হার ১০০% পযন্ত হতে পারে। বতমান সময়ে এক আতংকের নাম বার্ড ফ্লু /এভিয়ান ইনফ্লুয়েঞ্জা । প্রতি বছর হাজার হাজার কোটি টাকা ক্ষতির সম্মুখীন হয় এই রোগের জন্য। …

বিস্তারিত »

কবুতরের যেসব রোগ-ব্যাধি হতে পারে

কবুতর পালন সৌখিনতার পাশাপাশি এখন খামার পর্যায়েও পালন করা শুরু হয়েছে। ফলে একে অনেকেই এখন পেশা হিসেবে বেছে নিয়েছেন। ভেটসবিডিতে কবুতর বিষয়ক আর্টিকেলের চাহিদা বেশি থাকায় ভাবলাম এ নিয়েই কিছু লিখি। কবুতর পালনের ক্ষেত্রে রোগ-ব্যাধিই সবচেয়ে বড় সমস্যা ।     কবুতরের যেসব রোগ-ব্যাধি হতে পারে তার একটা তালিকা দিচ্ছিঃ …

বিস্তারিত »

মুরগির রোগ পরিচিতিঃ পর্বঃ০৪ ফাউল কলেরা

ফাউল কলেরা মুরগির একটি ছোয়াচে রোগ । এটি এ্কটি ব্যাকটেরিয়াজনিত রোগ ।এই রোগে মৃত্যুর হার প্রায় ৫০-৭৫% পযন্ত হতে পারে। এতে খামার বেশ আথিক ক্ষতি সম্মুখীন হয়।   ফাউল কলেরা কেন হয়? ফাউল কলেরা Pasteurella matocida   নামক ব্যাক্টেরিয়া দ্বারা হয়ে থাকে ।   ফাউল কলেরা সম্পকে কিছু তথ্যঃ ১।  ২-৪ …

বিস্তারিত »

মুরগীর রোগ পরিচিতিঃ পর্বঃ০৩/ মাইক্রোপ্লাজমোলেসিস বা সি আর ডি

মাইক্রোপ্লাজমোলেসিস বা ক্রনিক রেসপাইরেটরী ডিজিজ (সি আর ডি) একটি সংক্রামক রোগ। এটি শ্বাসতন্ত্রের একটি জটিল রোগ । বাংলাদেশের শীত কালে সাধারনত এই রোগের প্রকোপ দেখা যায়। এই দেশের আবহাওয়ায় সাধারনত নভেম্বর মাস হতে জানুয়ারি মাস পযন্ত এই রোগ বেশি হয়। বাংলাদেশের পোল্ট্রি শিল্পে প্রতি বছর এই সময়ে ব্যপক ক্ষতি সাধিত …

বিস্তারিত »

মুরগীর রোগ পরিচিতি ঃ পর্ব ২ ঃ রানীক্ষেত রোগ

বাংলাদেশের পোল্ট্রী শিল্পে রানীক্ষেত রোগ পরিচিত একটি নাম ।রানীক্ষেত অত্যন্ত একটি সংক্রমক , মারাত্বক রোগ। এটি একটি ভাইরাসজনিত রোগ । প্রতি বছর এই দেশের কোটি কোটি টাকা নষ্ট হয়ে যাচ্ছে এই রোগের জন্য । বাংলাদেশের প্রতিটি জেলায় এই রোগের বিস্তার দেখা যায় । এই পবে আমি রানীক্ষেত রোগ সম্পকে বিস্তারিত …

বিস্তারিত »

মুরগীর রোগ পরিচিতিঃ পর্বঃ১ বার্ডস এইডস / গামবোরো রোগ

বাংলাদেশের বানিজ্যক মুরগীর খামারে গামবোরো রোগ অতি পরিচিত একটি নাম। বাংলাদেশের প্রতিটি জেলায় গামবোরো রোগের প্রকোপ দেখা যায়। বাংলাদেশের অথনীতি প্রতি বছর কোটি কোটি টাকার ক্ষতির সম্মুখীন হয় এই রোগের কারণে। নিম্নে গামবোরো রোগ সম্পকে বিস্তারিত তুলে ধরার চেষ্টা করছি —– গামবোরো রোগের ইতিহাসঃ ১৯৬২ সালে বিজ্ঞানী কসাগ্রোভ আমেরিকার ডেলওয়ারা …

বিস্তারিত »